মহিলা ক্রিকেটের নতুন র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করল ICC, হরমনপ্রীত-দীপ্তির বড় সাফল্য – ICC releases new women’s cricket rankings, Harmanpreet

Advertisement

মহিলাদের টি-টোয়েন্টি র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করল আইসিসি। ভারতীয় দলের ক্যাপ্টেন হরমনপ্রীত কউর এবং তারকা অলরাউন্ডার দীপ্তি শর্মা দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ত্রিদেশীয় সিরিজে তাদের দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের জন্য এই র‌্যাঙ্কিংয়ে বড় সাফল্য পেয়েছেন। যেখানে হরমনপ্রীত কউর টি-টোয়েন্টি র‌্যাঙ্কিংয়ে তিন স্থান লাভ করে ১১ নম্বরে পৌঁছেছেন সেখানে দীপ্তি শর্মা ২৫তম স্থান অর্জন করেছেন।

দক্ষিণ আফ্রিকায় চলতি ত্রিদেশীয় সিরিজে ভালো পারফরম্যান্সের কারণে ভারতীয় দলের ক্যাপ্টেন হরমনপ্রীত কউর সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) মহিলাদের টি-টোয়েন্টি আন্তর্জাতিক প্লেয়ার র‌্যাঙ্কিংয়ে তিন ধাপ এগিয়ে ১১তম স্থানে পৌঁছেছেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ৩৫ বলে অপরাজিত ৫৬ রানের সুবাদে হরমনপ্রীত শীর্ষ ১০ ব্যাটসম্যানের মধ্যে জায়গা করে নেওয়ার কাছাকাছি পৌঁছে গিয়েছেন। ভারতের অলরাউন্ডার দীপ্তি শর্মা দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ৩৩ রান করার পর ক্যারিয়ারের সেরা ২৫তম অবস্থানে উঠে এসেছেন। সর্বশেষ র‌্যাঙ্কিংয়ে, অলরাউন্ডারদের তালিকায় দীপ্তিও এক স্থান উপরে উঠে দ্বিতীয় স্থানে পৌঁছে গিয়েছেন।

আরও পড়ুন… ধর্ষণের অভিযোগে অভিযুক্ত মাইক টাইসন, সামনে এল ৩৩ বছরের পুরনো ঘটনা

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ৫১ বলে অপরাজিত ৭৪ রানের জন্য প্লেয়ার অফ দ্য ম্যাচ হয়েছিলেন স্মৃতি মান্ধানা। তিনি তৃতীয় স্থানে অবস্থানে ভারতের শীর্ষস্থানীয় খেলোয়াড়। এই ইনিংস থেকে তিনি নয়টি রেটিং পয়েন্ট অর্জন করেছেন এবং তিনি মোট ৭৩৬ পয়েন্ট সংগ্রহ করেছেন। গত বছরের সেপ্টেম্বরে র‌্যাঙ্কিংয়ে দ্বিতীয় স্থানে ছিলেন স্মৃতি। তিনি দ্বিতীয় স্থানে থাকা বেথ মুনির থেকে ২৪ পয়েন্ট পিছিয়ে রয়েছেন। ৮১৪ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছেন তাহলিয়া ম্যাকগ্রা। দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক সুনে লুউস দুই ম্যাচে ২৯ ও ৩০ স্কোর করে ৪৭তম থেকে ৪৫তম স্থানে চলে এসেছেন। ক্লো টাইরন এবং মারিজান ক্যাপও র‌্যাঙ্কিংয়ে উন্নতি করেছেন।

দক্ষিণ আফ্রিকার বাঁ-হাতি স্পিনার ননকুলুলেকো মালাবা টি-টোয়েন্টি আন্তর্জাতিক বোলিং র‌্যাঙ্কিংয়ে ক্যারিয়ারের সেরা চতুর্থ স্থানে পৌঁছেছেন। দুই ম্যাচে তিনি নিয়েছেন দুই উইকেট। ভারতের স্নেহ রানা শীর্ষ ১০ তে রয়েছেন, আয়বোঙ্গা খাকা (চার স্থান উঠে ১৬তম), রাজেশ্বরী গায়কওয়াদ (১০ স্থান উঠে ১৮তম স্থানে রয়েছেন) এবং রাধা যাদব (১২ স্থান উঠে ২৮তম)ও র‌্যাঙ্কিংয়ে উন্নতি করেছেন। ওডিআই প্লেয়ার র‍্যাঙ্কিংয়ে, অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটসম্যান বেথ মুনি এবং মেগ ল্যানিং দুই স্থান লাভ করে যথাক্রমে দ্বিতীয় এবং পঞ্চম স্থানে পৌঁছেছেন। আইসিসি উইমেনস চ্যাম্পিয়নশিপ সিরিজে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অস্ট্রেলিয়ার ৩-০ ব্যবধানে জয়ে তারা দুজনেই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছিলেন।

আরও পড়ুন… কেন সিরিজ শেষে সিরাজকে নিয়ে মাতামাতি করা হল না, প্রশ্ন তুললেন মঞ্জরেকর

মুনি দ্বিতীয় এবং তৃতীয় ম্যাচে যথাক্রমে অপরাজিত ৫৭ এবং ১৩৩ রানের ইনিংসের জন্য সিরিজ সেরা নির্বাচিত হয়েছিলেন। ল্যানিং দুই ইনিংসে ৬৭ ও ৭২ রান করেন। পাকিস্তানের অধিনায়ক বিসমাহ মাহারুফ তিন ধাপ এগিয়ে ২২তম স্থানে উঠে এসেছেন। সিরিজে ৯৩ রান করেন তিনি। নিদা দারও তিন ধাপ এগিয়ে ৩২তম অবস্থানে রয়েছেন। বোলিং র‌্যাঙ্কিংয়ে অস্ট্রেলিয়ার অ্যাশলে গার্ডনার সাত ধাপ এগিয়ে ১৩তম স্থানে উঠেছেন, আর এলিস পেরি এক ধাপ এগিয়ে ১২তম স্থানে উঠেছেন। এলেনা কিং আট স্থান লাভ করেছে এবং ডার্সি ব্রাউন দুই স্থান লাভ করেছেন। দুজনেই যথাক্রমে ৩২ ও ৪০ তম অবস্থানে করছেন।

 

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।