Himanta on Shahrukh & Pathaan: ‘কে শাহরুখ খান?’, অসমে ‘পাঠান তাণ্ডবে’র পর মোদীর নির্দেশ ‘অমান্য’ হিমন্তের?

Advertisement

বিশ্ববিখ্যাত অভিনেতা শাহরুখ খানকে চেনেন না অসমের মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্ব শর্মা। শাহরুখ অভিনীত সিনেমা পাঠান নিয়ে চরম বিতর্ক ও বিক্ষোভ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে অসমের মুখ্যমন্ত্রী পালটা প্রশ্ন করেন, ‘কে শাহরুখ খান?’ তিনি দাবি করেন, তিনি শাহরুখ খানকে চেনেন না বা তাঁর সিনেমা পাঠান সম্পর্কে অবগত নন। এর আগে বিজেপির কর্মসমিতির বৈঠকে মোদী স্পষ্টভাবে নির্দেশ দিয়েছেন যাতে কর্মী-সমর্থকরা সিনেমার মতো ‘অপ্রাসঙ্গিক’ বিষয়ে মন্তব্য না করেন। তবে অসমের মুখ্যমন্ত্রীর মন্তব্যে বিতর্ক তৈরি হয়েছে। উল্লেখ্য, অসমে ‘পাঠান’ সিনেমাটির বিরুদ্ধে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে বজরং দলের সদস্যরা। পাশাপাশি সিনেমার পোস্টার ছিঁড়ে তাতে আগুন লাগিয়ে দেওয়ার অভিযোগও ওঠে। এই বিষয় নিয়ে প্রশ্ন করা হলেই হিমন্ত দাবি করেন, তিনি নাকি শাহরুখকে চেনেনই না। (আরও পড়ুন: বন্ধ সব কাজ, ওভারসাইট কমিটি গঠনের আগে কুস্তি ফেডারেশনের দরজায় তালা লাগাল সরকার)

এদিকে ‘শাহরুখ খান কে’ প্রশ্ন করার পর অবশ্য বিক্ষোভ প্রদর্শন নিয়ে মুখ খোলেন হিমন্ত। তিনি বলেন, ‘শাহরুখ আমাকে কোনও ফোন করেননি। তবে তিনি ফোন করলে আমি বিষয়টি খতিয়ে দেখব। যদি আইনশৃঙ্খলা লঙ্ঘন হয়ে থাকে তাহলে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’ এদিকে বলিউডকে ‘হেয়’ করে হিমন্ত বলেন, অসমের লোকেদের অহমিয়া সিনেমা নিয়ে মাতামাতি করা উচিত। শীঘ্রই মুক্তি পেতে চলেছে অহমিয়া সিনেমা ‘ডঃ বেজবড়ুয়া পার্ট ২’। তিনি সকলকে সেই সিনেমা দেখার আহ্বান জানান।

সম্প্রতি বিজেপির একাধিক নেতা ‘অপ্রাসঙ্গিক’ বিষয় নিয়ে আলপটকা মন্তব্য করেছেন। শাহরুখ খানের সিনেমা ‘পাঠান’ নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে শিরোনামে উঠেছেন বহু বিজেপি নেতা, মন্ত্রী। মোদীর মতে এতে শেষ পর্যন্ত অস্বস্তিতে পড়তে হয়েছে বিজেপিকে। মোদীর বার্তা, এই সব বিতর্কের জেরে দলের প্রচার কৌশল ছিন্নভিন্ন হচ্ছে। ওই অপ্রাসঙ্গিক বিষয়গুলি সামনে চলে আসছে। বিজেপির উন্নয়নের প্রচার পিছনের দিকে চলে যাচ্ছে। এতে দলের প্রচার কৌশল ধাক্কা খাচ্ছে। তাই সিনেমার মতো অপ্রাসঙ্গিক বিষয়ে যাতে অহেতুক কোনও মন্তব্য না করা হয়, সেই নির্দেশ দিয়েছিলেন মোদী। তবে মোদীর সেই ‘নির্দেশ’কে কতকটা পাশ কাটিয়েই শাহরুখ না চেনার দাবি করেন হিমন্ত।

প্রসঙ্গত, মধ্যপ্রদেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নরোত্তম মিশ্র এবং ভোপাল সাংসদ প্রজ্ঞা ঠাকুর-সহ কয়েকজন সিনিয়র বিজেপি নেতা শাহরুখ খান আর দীপিকা পাড়ুকোনের ‘পাঠান’ নিয়ে মন্তব্য করেছিলেন সম্প্রতি। সিনেমার গান ‘বেশরম রং’ নিয়ে আপত্তি তুলেছিলেন বহু বিজেপি নেতা এবং হিন্দুত্ববাদী সংগঠন। বিশেষ করে নায়িকার পরে থাকা গেরুয়া বিকিনি মেনে নিতে পারেননি অনেকেই। দাবি তুলেছিলেন, হিন্দুদের পবিত্র রং গেরুয়া, আর সেই রঙের বিকিনি পরা ‘বেশরম রং’ গানে আসলে হিন্দু ধর্মের অবমাননা। এর আগেও ‘বয়কট বলিউড’ ট্রেন্ডের জেরে ধাক্কা খেয়েছে হিন্দি সিনেমা ইন্ডাস্ট্রি। তবে মোদীর সাম্প্রতিক বার্তায় আস্বস্ত হয়েছিলেন বলিউডের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিরা। এই আবহে পাঠান সিনেমাটি নিয়ে কোথায় কীরকম পরিস্থিতি হয়, তাই দেখার। আগামী ২৫ জানুয়ারি সিনেমাটির মুক্তি পাওয়ার কথা।

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

 

 

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।