Forbes: বিহারের এই সরকারি স্কুল পড়ুয়াই আজ ধনীতম শিল্পপতিদের তালিকায়! চেনেন?

Advertisement

বিহারে সাধারণ পরিবারে জন্ম। পাটনার সরকারি স্কুলে পড়াশোনা। আর সেখান থেকে আজ ফোর্বসের ১০০ ধনীতম ব্যক্তিদের তালিকায়। অনিল আগরওয়ালের কাহিনী হার মানাবে সিনেমাকেও। ভারতের ১০০ ধনীতম ব্যক্তিদের মধ্যে নাম এল শিল্পপতির।

অনিল আগরওয়াল কে?

বেদান্ত রিসোর্সেস লিমিটেডের চেয়ারম্যান অনিল আগরওয়াল। বিশ্বখ্যাত শিল্পপতি তিনি। বর্তমানে ফোর্বসের তালিকা অনুযায়ী দেশের ৯৭তম ধনী ব্যক্তি তিনি। তাঁর মোট সম্পদের পরিমাণ প্রায় আড়াই বিলিয়ন মার্কিন ডলার। ভারতের বিশ্বের ৭২৮তম ধনী ব্যক্তি তিনি।

বেদান্ত রিসোর্সেস লিমিটেড ভারতের বৃহত্তম খনি এবং অ-লৌহ ধাতু সংস্থা। অস্ট্রেলিয়া এবং জাম্বিয়াতেও সংস্থার খনিজ সংক্রান্ত ব্যবসা রয়েছে। এছাড়াও আরও কয়েকটি দেশে তেল ও গ্যাসের উত্তোলন সংক্রান্ত কাজ করে সংস্থা।

এছাড়াও এই সংস্থা ওড়িশা (২,৪০০ মেগাওয়াট) এবং পঞ্জাবে (১,৯৮০ মেগাওয়াট) বাণিজ্যিক বিদ্যুৎ উত্পাদন কেন্দ্র স্থাপন করেছে। ফলে বুঝতেই পারছেন, কতটা বড় সংস্থা। 

বেদান্ত গোষ্ঠীতে প্রায় ২০ হাজার কর্মী কাজ করেন। সংস্থার সদর দফতর লন্ডনে। ফলে কত বড় সংস্থা, তা আশা করি বুঝতেই পারছেন। আরও পড়ুন:  কত টাকা বেতন পেলে নিউ ইয়র্কে গিয়ে পোষাবে? হিসাব দেখলে অবাক হবেন!

এদিকে এই বিপুল শিল্পপতি হওয়ার পিছনের মানুষটির কাহিনী শুনলে অবাক হয়ে যাবেন সকলেই।

সরকারি স্কুল থেকে ফোর্বসে নাম

পাটনায় এক সাধারণ পরিবারে জন্ম অনিল আগরওয়ালের। বাবার অ্যালুমিনিয়াম কন্ডাক্টরের ছোট ব্যবসা ছিল। খুল অল্প বয়স থেকেই বাবার ব্যবসায় হাত লাগাতেন। ফলে ধাতু সংক্রান্ত ব্যবসার মূল বিষয়গুলি একেবারে ছোটবেলাতেই রপ্ত করেন। পড়তেন পাটনার মিলার হাই স্কুলে।

একটু বড় হতেই পারিবারিক ব্যবসায় পুরোদমে যোগ দেন। কিন্তু সেই সময়ে বিহারে ব্যবসার সুযোগ-সুবিধা বেশ কম ছিল। আর সেই কারণেই ১৯৭৬ সালে মুম্বই পাড়ি দেন। সেখানেই স্ক্রাপ ধাতুর কারবার শুরু করেন। প্রাথমিকভাবে নতুন জায়গা, অল্প বয়সের কারণে সমস্যা হয়েছিল। কিন্তু ধীরে ধীরে সেই ব্যবসাই ফুলে-ফেঁপে ওঠে। মুম্বইয়ের শিল্পায়নের সঙ্গে সঙ্গে তাঁর ব্যবসাও বাড়তে থাকে দ্রুত গতিতে।

এদিকে শুধু এই ব্যবসায় আটকে থাকলে যে চলবে না, তা বুঝতে পেরেছিলেন অনিল। ব্যবসা থেকে করা টাকায় মাত্র ৩ বছরের মধ্যেই একটি তার নির্মাতা সংস্থা কিনে নেন। এরপর আর ফিরে তাকাতে হয়নি। একের পর এক ব্যবসায়িক অধিগ্রহণ, বিপুল লাভজনক সংস্থা, সরকারি অ্যালুমিনিয়াম ব্যবসায় অংশীদারিত্ব ক্রয়ের মাধ্যমে দেশের শীর্ষ সংস্থাগুলির তালিকায় চলে আসে বেদান্ত।

এক সময়ে ছাঁটাই ধাতু কেনাবেচা দিয়ে ব্যবসা শুরু করেছিলেন। আর আজ সেই অনিল আগরওয়ালই ভারতের অন্যতম বড় ইস্পাত সংস্থা ইলেকট্রোস্টিলে ৯০%-এর মালিক। ২০১৮ সালে এই সংস্থায় অংশীদারিত্ব কেনেন তিনি। ভারতে সেমিকন্ডাক্টর শিল্পের উত্থান করতে সম্প্রতি গুজরাটে ২০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগেরও ঘোষণা করেন তিনি। আরও পড়ুন: সেকেন্ডে প্রায় ১.৫ লক্ষ টাকা আয় করে Apple! পিছিয়ে নেই Google, Microsoft-ও

সরকারি স্কুলের পড়ুয়া থেকে বিশ্ববরেণ্য শিল্পপতি। তা সত্ত্বেও আজও মনের মধ্যে সেই পাটনার মধ্যবিত্ত পরিবারের সন্তানই রয়েছেন ৭৫ বছরের ‘কিশোর’। সম্প্রতি এক টুইটে নিজেই জানান, কোনও বড় বৈঠকের আগে অবশ্যই মনে করে মুখে একটু দই-চিনি দেন। যাতে কাজ শুভ হয়। তিনি বলেন, আমার মা ছোটবেলায় এই জিনিসটি শিখিয়েছিলেন। আমার কাছে এটি শুধু ঐতিহ্য বা বিশ্বাস নয়, মায়ের আশীর্বাদও বটে। নিজের অতীত ভুলে যাননি কোটিপতি ব্যবসায়ী। বেদান্ত ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে স্কুল, হাসপাতাল নির্মাণের ক্ষেত্রে সামাজ

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।