ভুতুড়ে আবেদন মামলায় কলকাতা হাইকোর্টের রায়ে স্থগিতাদেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট

Advertisement

অযোগ্যদের নিয়োগ করতে চেয়ে বেনামি আবেদন হয়েছে বলে উল্লেখ করে যে সিবিআই তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে কলকাতা হাইকোর্ট তাকে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হল রাজ্য সরকার। রাজ্যের আবেদনের ভিত্তিতে কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশে ৩ সপ্তাহের স্থগিতাদেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ বৃহস্পতিবার এই মামলায় বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের সিঙ্গল বেঞ্চের রায় অপরিবর্তিত রাখে। সেই রা

নতুন পদ তৈরি করে অযোগ্যদের চাকরিতে পুনর্বহাল করতে গত সেপ্টেম্বরে আদালতে চারটি আবেদন করেছিল স্কুল সার্ভিস কমিশন। বৃহস্পতিবার সেই আবেদন প্রত্যাহার করতে চেয়ে বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের এজলাসে আবেদন করে তারা। তখনই বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায় বলেন, এই আবেদন SSC করেছে বলে মনে হচ্ছে না। SSC কে দিয়ে কেউ এই আবেদন করিয়েছে। SSC যে নির্দেশনামায় তাদের আইনজীবীকে এই আবেদন করতে বলেছে তার ফাইল আদালতের সামনে পেশ করতে হবে। বিকেলে ফাইল পেশ করলে দেখা যায়, সেখানে এরকম কোনও নির্দেশ নেই। এর পরই কে বা কারা SSC-র নামে এই আবেদন আদালতে করেছে তা CBI-কে খুঁজে বার করতে নির্দেশ দেন বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়। CBI-কে সাত দিন সময় দেন তিনি।

শুক্রবার বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের রায়কে চ্যালেঞ্জ করে কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হয় রাজ্য সরকার। কিন্তু তাতে কোনও লাভ হয়নি। সিঙ্গল বেঞ্চের রায়কে বহাল রাখে ডিভিশন বেঞ্চ। সঙ্গে বিচারপতিরা প্রশ্ন করেন, কী ভাবে অযোগ্যদের বহাল রাখতে এই ধরণের নির্দেশ দিতে পারে SSC?

রাত পোহাতে না পোহাতেই ডিভিশন বেঞ্চের রায়কে চ্যালেঞ্জ করে এবার সুপ্রিম কোর্টে গেল রাজ্য। এদিন মামলাটি গ্রহণ করে তিন সপ্তাহের জন্য হাইকোর্টের নির্দেশে স্থগিতাদেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

 

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।