Suvendu Adhikari: ‘এনআইএ সবে মাত্র শুরু করেছে, সময় এখনও বাকি আছে’, তৃণমূলকে হুঁশিয়ারি শুভেন্দুর

Advertisement

পঞ্চায়েত ভোটের আগে খেজুরিতে ‘হার্মাদ মুক্ত দিবস’ পালন করতে গিয়ে তৃণমূলকে হুঙ্কার দিলেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। বৃহস্পতিবারই খেজুরিতে বিজেপি কর্মীদের মারধর করার অভিযোগ উঠছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে। তারপরেই সেখানে এনআইএ’র প্রসঙ্গ টেনে তৃণমূলকে হুঁশিয়ারি করলেন বিরোধী দলনেতা। আর শুভেন্দু অধিকারীর এই হুঁশিয়ারির পরে আরও একবার বিজেপির বিরুদ্ধে কেন্দ্রীয় সংস্থাগুলিকে পঞ্চায়েত ভোটে জেতার জন্য কাজে লাগানোর অভিযোগ তুলল তৃণমূল।

শুভেন্দু অধিকারী বৃহস্পতিবার খেজুরিতে মিছিল করে সভা করেন। সেখান থেকে তিনি বলেন, ‘শেখ ইয়াসিন নামে কে একজন বিজেপি কর্মীকে মেরেছে। পুলিশকে হুঁশিয়ারি দিচ্ছি নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে উপযুক্ত ব্যবস্থা না নিলে ১ তারিখে আবার আমি আসব খেজুরিতে। তখন বুঝিয়ে দেব কে এই শুভেন্দু।’ এরপরেই এনআইএ’র প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘এনআইএ সবে মাত্র শুরু করেছে। এখন ১২ টা বাজে, সূর্য এখনও ডোবেনি। গোটা দিন পড়ে আছে।’ ইয়াসিনকে হুঁশিয়ারি করে শুভেন্দু অধিকারী আরও বলেন, ‘ইয়াসিন বাবু আপনার কী ওষুধ লাগবে ডাক্তারবাবু সব জানে। এই দায়িত্বটা আমি নিচ্ছি।’

প্রসঙ্গত, গত জানুয়ারিতে পশ্চিম ভাঙনমারি গ্রামে এক তৃণমূল কর্মীর বাড়িতে বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় তদন্তভার নিয়েছে এনআইএ। এরজন্য বিজেপি কর্মীরা কেন্দ্রের কাছে চিঠি লিখেছিলেন। পাশাপাশি বীরভূমে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বে বোমাবাজির ঘটনায় এনআইএ তদন্ত হবে কিনা তা কেন্দ্রকে ঠিক করতে বলেছে কলকাতা হাইকোর্ট।

তবে এদিন শুভেন্দু অধিকারীর বক্তব্যের পরে প্রতিক্রিয়া দিতে ছাড়েনি তৃণমূল। দলের কাঁথি সাংগঠনিক জেলার সভাপতি তরুণ মাইতি বলেন, ‘শুভেন্দু অধিকারী কেন্দ্রীয় সংস্থার নাম করে ভয় দেখানোর চেষ্টা করছেন। আমরা প্রথম থেকেই বলে আসছি বিজেপি কেন্দ্রীয় সংস্থাগুলিকে কাজে লাগিয়ে ভোটে জিততে চায়। শুভেন্দু অধিকারীর বক্তব্যে আজ আবার একবার তা স্পষ্ট হয়ে গেল।’ তবে পঞ্চায়েত ভোটে বিজেপি যতই ভয় দেখাক তৃণমূলই জিতবে বলে তিনি দাবি করেছেন।

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।