সঞ্জু দারুণ ব্যাট করছিল, ভেবেছিলাম আমার জায়গায় ও সুযোগ পাবে: মনীশ পান্ডে

Advertisement

শুভব্রত মুখার্জি: সদ্য শেষ হওয়া টি-২০ বিশ্বকাপে সঞ্জু স্যামসনের সুযোগ না পাওয়া নিয়ে কম জলঘোলা হয়নি। বিতর্কের ঝড় উঠেছিল সোশ্যাল মিডিয়াতেও। অস্ট্রেলিয়াতে টি-২০ বিশ্বকাপে সেমিফাইনালে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে লজ্জাজনক হারের পর থেকে এই বিতর্ক নয়া মাত্রা পেয়েছিল। এরপরেই নিউজিল্যান্ড সফরে যায় ভারত। সেখানে টি-২০তে অবশ্য ভারতীয় দলের হয়ে সুযোগ পান সঞ্জু। যদিও একটি ম্যাচেও খেলেননি তিনি। আর এবার সেই সঞ্জুকে নিয়েই মুখ খুলেছেন তাঁর একদা সতীর্থ মনীশ পান্ডে। তাঁর বক্তব্য সঞ্জু দারুণ ব্যাট করছিল। তিনি ভেবেছিলেন তিনি নন তাঁর জায়গাতেই জাতীয় দলে খেলবেন সঞ্জু এমনটাই ভেবেছিলেন তিনিও।

প্রসঙ্গত ভারতীয় ওয়ানডে এবং টি-২০ দলে পাঁচ বছর খেলেছিলেন মনীশ পান্ডে। সেই সময় তিনি ২৯টি ওয়ানডে এবং ৩৯টি টি-২০তে আন্তর্জাতিক ম্যাচে খেলেছিলেন তিনি। ২০২০ সালে ভারতীয় দলের হয়ে শেষবার টি-২০তে খেলেছিলেন মনীশ। ২০২১ সালে ভারতীয় দলের হয়ে ওয়ানডে দলে খেলেছিলেন মনীশ পান্ডে। এরপর জাতীয় দলের ম্যানেজমেন্ট সঞ্জু স্যামসন, শ্রেয়স আইয়ার এবং সূর্যকুমার যাদবের প্রতি নজর দেয়। এই সম্বন্ধে বলতে গিয়েই স্পোর্টসক্রীড়াকে মনীশ জানিয়েছেন ‘দেখুন ব্যক্তিগতভাবে আমি এই জিনিসকায় স্বাভাবিকভাবেই দুঃখ পেয়েছি। ব্যাটিং অর্ডারে উপরের দিকে বেশি ম্যাচে ব্যাট করতে পারলে সেটা ভালো হত। তবে ভারতীয় দল যে সিদ্ধান্ত নিক না কেন, যেই বেশি ম্যাচ খেলুক না। কেন। সেই বিষয়ে আমি সবসময় খুশি হই। আমার কোন দুঃখ নেই। সঞ্জু সেইসময়টা ভালো ব্যাট করছিল। আমি আশা করেছিলাম ও আরও বেশি ম্যাচে খেলতে পারবে। ও পরবর্তীতে সেই সুযোগটা পেয়েছে। ফলে বিষয়টা নিয়ে আমার কোন‌ও খারাপ লাগা নেই।’

তিনি আরও বলেন ‘তবে ব্যক্তিগতভাবে আমি বলতে চাই আরও বেশি ম্যাচ খেলতে পারলে আমার ভালো হত। উচ্চ পর্যায়ে আমি নিজেকে প্রমাণ করার আরো সুযোগ পেয়ে যেতাম। দুর্ভাগ্যজনকভাবে সেটা বাস্তবে হয়নি। এখন আমাকে দেখতে হবে এই জায়গায় দাঁড়িয়ে আমি ভবিষ্যতে ঠিক কোথায় যেতে পারি।’

বর্তমানে সঞ্জুর অবস্থা অনেকটাই মনীশের মতন। তাঁকে বেশিরভাগ সময়টা বেঞ্চে কাটাতে বাধ্য হতে হয়েছে। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টি-২০ সিরিজে দলে থাকলেও প্রথম একাদশে সুযোগ পাননি সঞ্জু। এই বিষয়ে মনীশ পান্ডে জানিয়েছেন ‘আমিও এই পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে গিয়েছি ভারতীয় দলে (প্রথম দলে সুযোগ না পাওয়া)। অনেক সময় এমন গিয়েছে আমি খুব কম ম্যাচেই খেলেছি। আমাকেও বসে থাকতে হয়েছে। জিনিসটা সত্যি সত্যিই খুব দুঃখজনক। আমি এইসব জিনিসকে আমার উপর প্রভাব ফেলতে দিইনি। আমি যদি সুযোগ পাই, ভালো খেলতে চাই, রান করতে চাই। দেখা যাক ভবিষ্যতে কী হয়!’

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।