৩০ উদীয়মান শিল্পীকে বিশেষ স্কলারশিপ দিল জি এন্টারটেনমেন্ট।Born To Shine Zee Entertainment Offers Special Scholarship To 30 Budding Artists For A Better Future

Advertisement

জি ২৪ ঘণ্টা ডিজিটাল ব্যুরো: জি এন্টারটেনমেন্ট ‘গিভ ইন্ডিয়া’র সঙ্গে একযোগে নিউ ট্যালেন্টদের দিকে বাড়িয়ে দিল তাদের হাত! যেসব প্রতিভাবান শিশুকন্যা নিজেদের কাজের মাধ্য়মে ইতিমধ্যেই  নিজস্ব কলাকৃষ্টিসংস্কৃতিতে প্রতিশ্রুতির ছাপ রাখছে, রাখতে শুরু করেছে তারা আগামীদিনে যাতে আরও বিকশিত হতে পারে সেদিকে লক্ষ্য রেখে ‘বর্ন টু শাইন’-এর মাধ্যমে তাদের বিশেষ স্কলারশিপের ব্যবস্থা করল জি এন্টারটেনমেন্ট। ৩০ জন উদীয়মান কন্যা এই পুরস্কার পেয়েছে। মুম্বইয়ে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এই স্কলারশিপ দেওয়া হল। এজন্য দেশের ৮ শহরের ৫ বছর থেকে ১৫ বছর বয়সী মেয়েদের বেছে নেওয়া হয়েছিল। তাদের হাতে তুলে দেওয়া হল ৪ লক্ষ টাকা। পাশাপাশি থাকছে তাদের দেখভাল করার বিষয়টিও। আগামী ৩০ মাস ধরে এই কন্যারা এই গোষ্ঠীর তত্ত্বাবধানে পাবে বিশেষ প্রশিক্ষণ-সহায়তা। গত ১ বছর ধরে ৫০০০-এরও বেশি মেয়েরা এই স্কলারশিপের জন্য আবেদন করেছিল। তবে এক বিশেষ জুরি প্যানেল বিভিন্ন রাউন্ডের মাধ্যমে সেখান থেকে যোগ্যদের বেছে নিয়েছে।

বিশেষ এই জুরি প্যানেলে ছিলেন জি এন্টারটেনমেন্ট  এন্টারপ্রাইজেস লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর পুনীত গোয়েঙ্কা, স্বদেশ ফাউন্ডেশনের ম্যানেজিং ট্রাস্টি অ্যান্ড ডিরেক্টর জারিনা স্ক্রিউওয়ালা, সুব্রহ্মণ্য়ম অ্যাকাডেমি অফ পারফর্মিং আর্টস-এর কো-ফাউন্ডার সিইও বিন্দু সুব্রহ্মণ্যম, সিএআরইআর-এর ফাউন্ডার সিইও সমর মাহিন্দ্রা, ব্রহ্মানন্দ কালচারাল সোসাইটির ফাউন্ডার রূপক মেহতা।

গোটা দেশে বিজ্ঞান, গণিত, খেলা ইত্যাদি ক্ষেত্রের প্রতিশ্রুতিমান প্রতিভাদের উৎসাহিত করার জন্য স্কলারশিপ প্রোগ্রাম ঘোষণা নতুন কোনও বিষয় নয়। কিন্তু  ‘বর্ন টু শাইন’ একেবারেই আলাদা গোত্রের এক স্কলারশিপ। ‘বর্ন টু শাইন’ কলা ও কৃষ্টির জগতে প্রতিভার স্বাক্ষর রাখতে চলা শিশুকন্য়াদের চিহ্নিত করে, তাদের সহায়তা দেয়। 

Advertisement

কী ভাবে ‘বর্ন টু শাইন’  স্কলারশিপের আওতায় আসা যাবে? 

গোটা দেশ থেকে অনূর্ধ্ব-১৫ কন্যাসন্তানরা এর জন্য আবেদন করতে পারবে

তবে এদের প্রত্যেকেরই যে কোনও ভারতীয় শিল্পমাধ্যমে বিশেষ দক্ষতা অবশ্য কাম্য         

‘বর্ন টু শাইন’  স্কলারশিপের অর্থমূল্য কত?

তিন বছরের জন্য ৪ লাখ টাকা।

ভারতীয় কলাশিল্পে সুদক্ষ প্রতিশ্রুতিমান কন্যারা আগামী দিনে যাতে আরও বিকশিত হতে পারে সেদিকে সতর্ক নজর রাখার জন্যই এই উদ্য়োগ। পাশাপাশি, কন্যাসন্তানের ক্ষমতায়ন এবং ভারতীয় কলাশিল্পমাধ্যকে পুষ্ট করাটাও এই স্কলারশিপের বিশেষ লক্ষ্যের মধ্যে পড়ে। 

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App) 

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।