কেন্দ্রীয় ‘জল জীবন’ মিশনে ৫০০ কোটি টাকা টেন্ডার দুর্নীতির অভিযোগ শুভেন্দুর

Advertisement

কেন্দ্রীয় প্রকল্পের টাকায় রাজ্যে টেন্ডার দুর্নীতির বিস্ফোরক দাবি করলেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। শুক্রবার এক সাংবাদিক বৈঠকে তিনি দাবি করেন, রাজ্যে প্রায় ৫০০ কোটি টাকার ফেরুল দুর্নীতি হয়েছে। এই টাকা তৃণমূলের শীর্ষস্তরে পৌঁছেছে বলে দাবি করেন তিনি। সঙ্গে জানান, গোটা দুর্নীতির তদন্তের দাবি জানিয়ে শুক্রবারই কেন্দ্রীয় নগরোন্নয়ন মন্ত্রী গজেন্দ্র শেখাওয়তকে চিঠি লিখবেন তিনি।

এদিন শুভেন্দুবাবু দাবি করেন, কেন্দ্রীয় জল জীবন মিশনের অধীনে ফেরুল কেনার বরাৎ পেয়েছে হাওড়ার নির্দিষ্ট তিনটি সংস্থা। তারাই সব কটি টেন্ডারে অংশগ্রহণ করেছে। তাদের মধ্যে এক জনকে অযোগ্য ঘোষণা করে বাকি ২ অংশগ্রহণকারীর মধ্যে টেন্ডার খুলে দেওয়া হয়েছে। এর বিনিময়ে ওই সংস্থাগুলি থেকে মোটা টাকা কাটমানি সংগ্রহ করেছেন কয়েকজন রাজ্যের জনস্বাস্থ্য মন্ত্রী পুলক রায়, দফতরের কয়েকজন আধিকারিক ও ভাইপোর পিএ এস রায়।

শুভেন্দুবাবু দাবি করেন, এভাবে ২১৩ টাকা দামের ফেরুল মানুষকে ৫৭০ টাকায় কিনতে বাধ্য করা হয়েছে। এভাবে তৃণমূল নেতারা প্রায় ৫০০ কোটি টাকা তৃণমূলের শীর্ষস্তরে পৌঁছেছে। তিনি বলেন, গরু, কয়লা, পাথর পাচারের টাকা যেখানে পৌঁছয়, সেখানেই পৌঁছেছে এই টাকাও।

তিনি দাবি করেন, ২জি স্পেকট্রাম, কমনওয়েলথ গেমসের মতো দুর্নীতি হয়েছে। আমি আজই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী গজেন্দ্র শেখাওয়তকে চিঠি লিখব। এই দুর্নীতির তদন্তের অনুরোধ করব তাঁকে। ৭ দিনের মধ্যে তদন্ত শুরু না হলে আদালতে জনস্বার্থ মামলা করব।

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।