The Kerala Story Controversy: বঙ্গসন্তানের ফিল্ম ‘দ্য কেরলা স্টোরি’ ঘিরে বিতর্ক তুঙ্গে! ডিজিপির নির্দেশে এফআইআর

Advertisement

বামশাসিত কেরলে ‘দ্য কেরলা স্টোরি’ ফিল্মটি নিয়ে ব্যাপক বিতর্ক তৌৈরি হয়েছে। কেরলের ডিজিপি অনিল কান্ত তিরুঅনন্তপুরমের পুলিশ কমিশনার স্পারজন কুমারকে এই ফিল্মের সদস্যদের বিরুদ্ধে এফআইআর রেজিস্টার করতে নির্দেশ দিয়েছেন। গোটা রাজ্যজুড়ে ইতিমধ্যেই এই ফিল্ম ঘিরে ব্যাপক ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে।

কেন বিক্ষোভ?

‘দ্য কেরলা স্টোরি’ ঘিরে উঠে আসছে সন্ত্রাসবাদীদের নিয়ে কিছু বিষয়। অভিযোগ, ছবিতে তুলে ধরা হয়েছে, কেরল কীভাবে সন্ত্রাসবাদীদের ‘সেফ হেভেন’ হয়ে উঠেছে, কার ছবি। আর তা নিয়েই ক্ষোভ। ছবির টিজারে দেখানো হয়েছে, কেরল থেকে ৩২,০০০ মহিলাকে ধর্মান্তরিত করে নিয়ে তাদের সিরিয়া ও আফগানিস্তানে আইএসআইয়ের প্রশিক্ষণ শিবিরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। এই ফিল্ম পরিচালনা করেছেন বঙ্গতনয় সুদীপ্ত সেন। ও ছবিটির প্রযোজনা করেছে ভিএ শাহ।

ঘুম হচ্ছে না, জল কম খাচ্ছেন? রোজের কয়েকটি সমস্যা কোন স্বাস্থ্য সংকট ডেকে আনে!

বিতর্ক

কয়েকদিন আগেই তামিলনাড়ুর এক সংবাদিক বিআর অরবিন্দদক্ষণ সিবিএফসির প্রধান প্রসূন যোশীকে চিঠি লিখে এই ছবি নিষিদ্ধ করার জন্য আবেদন জানান। তাঁর দাবি, যে তথ্য ফিল্মে তুলে ধরা হয়েছে, তার সপক্ষে সঠিক প্রমাণ না থাকলে ছবিটিকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হোক। এই অভিযোগের একটি কপি কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়নকেও পাঠানো হয়। তিনি সেই কপি ফরোয়ার্ড করেন ডিজিপিকে। তার ভিত্তিতেই এফআইআর দায়ের হয়। 

মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি

পিনারাই বিজয়নকে লেখাে চিঠিতে ই সাংবাদিক দাবি করেছেন, এই ফিল্ম দেশের ঐক্যের পক্ষে ক্ষতিকারক। এতে দেশের গুপ্তচর সংস্থারও ক্ষতি হতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে। এদিকে, তদন্তে নেমে পুলিশ দেখেছে ফিল্মে করা বহু দাবিই ভ্রান্ত। মনে করা হচ্ছে, কেরলের ভাবমূর্তি ক্ষু্ণ্ণ করতে এমন ছবির টিজার তুলে ধরা হচ্ছে। এমনই তথ্য পুলিশি তদন্ত থেকে উঠে আসছে বলে জানা যাচ্ছে।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।