BGPM: ভাঙল হামরো পার্টি, এবার অজয়কে BGPM-এ যোগ দিতে আমন্ত্রণ অনীতের

Advertisement

দলনেতা অজয় এডওয়ার্ডের অশঙ্কা সত্যি করে শেষ পর্যন্ত ভাঙন হল হামরো পার্টিতে। দলের দুই শীর্ষ স্থানীয় নেতা যোগ দিলেন অনীত থাপার দল ভারতীয় গোর্খা প্রজাতান্ত্রিক মোর্চায়(BGPM)। শনিবার দার্জিলিং শহর লাগোয়া ঘুম জোড়বাংলো কেন্দ্রের জিটিএ সদস্য প্রোমোসকর ব্লোন এবং পুলবাজার বিজনবাড়ির কেন্দ্রের ভূপেন্দ্র ছেত্রী যোগ অনীতের দলে।

দুই নেতার সাম্প্রতিক আচারণের উপর আঙুল তুলে অজয় আশঙ্কা করেছিলেন যে ‘দল ভাঙানোর খেলায় নেমেছেন’ অনীত। নিজে ফেসবুক লাইভ করে বলেছিলেন তাঁর দলের দুই নেতার সঙ্গে অতীত গোপন বৈঠক করেছেন। প্রসঙ্গক্রমে তিনি ওই লাইভেই অভিষেক ও মমতা বন্দ্যোধ্যায়ের উদ্দেশে বলেনছিলেন, ‘ বহু বছর পর পাহাড়ে গণতন্ত্র ফিরেছে। এ ভাবে দল ভাঙানোর খেলা ঠিক নয়। বিরোধী দল হিসাবে অন্যায়ের বিরুদ্ধে সরব হব এটাই আমাদের কাজ। পাহাড় আবার একনায়তন্ত্রে চলে যাচ্ছে।’ তাঁর অশঙ্কা সত্যি করে অজয়ের দলের দুই নেতা যোগ দিলেন গোর্খা প্রজাতান্ত্রিক মোর্চায়।

নতুন দলে যোগ দিয়ে প্রোমোসকর বলেন, ‘আমি একজন জয়ী প্রার্থী, মানুষ আমায় জিতিয়েছে। তাই তাঁদের প্রতি আমার কিছু দায়িত্ব আছে।’ দুই নেতার অনীতের সঙ্গে বৈঠকের খবর পেয়েই অজয় তাঁদের সঙ্গে সমস্ত সম্পর্ক ছিন্ন করার কথা বলেছিলেন। একে কার্যত বহিষ্কার বলে ধরে নিয়েছিলেন প্রোমোসকর। কিন্তু হামরো দলনেতার দাবি তিনি অনেকবার তাঁদের সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেছিলেন কিন্তু তাদের নাগাল পাননি। এমন কী তাঁদের বাড়ি পর্যন্ত চলে গিয়েছিলেন বলে দাবি করেছেন অজয়।

গোর্খা প্রজাতান্ত্রিক মোর্চা নেতা তথা জিটিএ চিফ এজিকিউটিভ অনীত থাপা অবশ্য এই যোগদানের পর ঠারেঠোরে বোঝানোর চেষ্টা করেন তিনি দল ভাঙাননি। তাঁর দাবি, ‘উন্নয়নের স্বার্থে হামরোর নেতার তাঁর দলে যোগ দিয়েছেন।’ প্রসঙ্গক্রমে তিনি অজয় এডওয়ার্ডকেও তাঁর দলে স্বাগত জানান অনীত।

তবে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, অজয়ের দীর্ঘ দিনের সঙ্গী প্রোমোসকর হামরো পার্টির একজন গুরুত্বপূর্ণ নেতা। তাই তাঁর দলত্যাগ যে একটি বড় ধাক্কা তা বলাই বাহুল্য। পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে এই ধাক্কা হামরো কী ভাবে সামলায় সেটাই দেখার।

 

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।