Lakshmi Bhandar: লক্ষ্মী ভাণ্ডারে একজনের টাকা ঢুকল অন্যের অ্যাকাউন্টে!

Advertisement

মহিলাদের জন্য রাজ্য সরকারের একটি বিশেষ প্রকল্প হল লক্ষ্মী ভান্ডার। এই প্রকল্প চালু হতেই একাধিক অভিযোগ সামনে এসেছে। যারমধ্যে অনেকের অ্যাকাউন্টে দুবার করে টাকা ঢোকার অভিযোগ যেমন রয়েছে তেমনিই একই ব্যক্তির দুটি অ্যাকাউন্টে টাকা ঢোকার অভিযোগও আছে। এবার একজনের টাকা অন্যের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে ঢোকার অভিযোগ উঠল। এমন অভিযোগ সামনে আসতেই ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। নিউ ব্যারাকপুরের এই ঘটনায় পুরসভার তরফে বিষয়টি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।

জানা গিয়েছে, এক মহিলা দুয়ারের সরকারের ক্যাম্পে গিয়েছিলেন। তিনি লক্ষ্মী ভান্ডারের জন্য আবেদন করেছিলেন। সেখানে গিয়ে তিনি জানতে পারেন তার নামে লক্ষ্মীর ভান্ডার চালু রয়েছে এবং তিনি প্রতি মাসে এর সুবিধাবাবদ টাকাও পাচ্ছেন। যদিও মহিলার দাবি তিনি সেই টাকা পাননি। ওই মহিলার নাম পূজা নাগ। তিনি বারাকপুরের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা। মহিলার দাবি, তিনি গতবার দুয়ারে সরকারের সময় লক্ষ্মীর ভান্ডারের জন্য আবেদন করেছিলেন। কিন্তু তারপরেও তিনি এর সুবিধা পাননি। গতকাল থেকে দুয়ারে সরকারের ক্যাম্প শুরু হয়েছে। তাই তিনি দুয়ারে সরকার ক্যাম্পে গিয়ে খোঁজখবর নেন। সেখানেই তিনি জানতে পারেন প্রতি মাসে তার নামে টাকা দেওয়া হচ্ছে। সেখানেই ওই মহিলা জানতে পারে তার ব্যাঙ্কের অ্যাকাউন্ট নম্বর ভুল রয়েছে। যে অ্যাকাউন্ট নম্বর দেওয়া হয়েছে সেই নম্বরেই টাকা যাচ্ছে। এরপরে পুরসভার সঙ্গে যোগাযোগ করেন ওই মহিলা। এনিয়ে শোরগোল পড়ে যায়।

যদিও মহিলা দাবি করেছেন, দুয়ারে সরকার ক্যাম্পের সময় তিনি যে সমস্ত নথি দিয়েছিলেন তার মধ্যে থাকা ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের নথি সঠিক ছিল। তা সত্ত্বেও কীভাবে এই ভুল হল? কার অ্যাকাউন্টে এই টাকা ঢুকছে? বা কার ভুলের জন্য এই সমস্যা হয়েছে? তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। মহিলার এই বিষয়টি প্রকাশ্যে আসতেই শোরগোল পড়ে যায়। বিষয়টি খতিয়ে দেখার আশায় দিয়েছে পুরসভা।

Advertisement

Malek

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।